হযরত আবু যার গিফারী (রাঃ ) এর কষ্ট সহ্য করা - ১ম পর্ব | আমার কথা
×

 

 

হযরত আবু যার গিফারী (রাঃ ) এর কষ্ট সহ্য করা - ১ম পর্ব

coSam ২৩৫


হযরত ইবনে আব্বাস (রাঃ) বলেন, হযরত আবু যার গিফারী (রাঃ) রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের নবুওয়াত প্রাপ্তির সংবাদ পাওয়ার পর নিজের ভাইকে বলিলেন, তুমি মক্কায় যাইয়া আমার জন্য সেই লোক সম্পর্কে সংবাদ লইয়া আস যিনি নিজেকে নবী বলিয়া দাবী করিতেছেন এবং তাঁহার নিকট আসমান হইতে খবর আসে বলিতেছেন তাঁহার কথাবার্তা মনোযোগ দিয়া শ্রবণ করিবে এবং আমার নিকট আসিয়া জানাইবে।

তাঁহার ভাই রওয়ানা হইয়া রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের নিকট ফিরিয়া গেলেন এবং বলিলেন, আমি তাহাকে দেখিলাম যে, তিনি উত্তম চরিত্রাবলীর আদেশ করেন এবং তাহাকে এমন কিছু কথা বলিতে শুনিলাম যাহা কোন কবিতা নহে। হযরত আবু যার (রাঃ) (ভাইয়ের কথা শুনিয়া) বলিলেন, তুমি আমাকে আশানুরূপ পরিতৃপ্ত করিতে পারিলে না।

অতঃপর নিজেই সফরের সামান প্রস্তুত করিলেন, মশক ভরিয়া পানি লইলেন এবং মক্কায় পৌছিয়া মসজিদে হারামে নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামকে খোঁজ করিলেন। কিন্তু তিনি নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামকে চিনিতেন না, আর (পরিস্থিতির কারণে) তাঁহার ব্যাপারে কাহাকেও জিজ্ঞাসা করা সমীচীন মনে করিলেন না।

এইভাবে রাত্র হইয়া গেলে তিনি মসজিদেই শুইয়া পড়িলেন। হযরত আলী (রাঃ) তাহাকে দেখিয়া তাঁহার পিছন পিছন চলিলেন।(হযরত আলী (রাঃ) রাত্রে তাঁহার মেহমানদারী করিলেন।) কিন্তু উভয়ের কেহ কাহাকেও জিজ্ঞাসা করিলেন না। সকাল হইলে হযরত আবু যার (রাঃ) নিজের সামানপত্র ও পানির মশক লইয়া মসজিদে আসিয়া পড়িলেন। সারাদিন মসজিদেই রহিলেন, কিন্তু সন্ধ্যা পর্যন্ত নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের সহিত তাঁহার সাক্ষাৎ ঘটিল না। তিনি নিজের শুইবার জায়গায় আসিলেন।

এমন সময় হযরত আলী (রাঃ) তাঁহার নিকট গেলেন এবং মনে মনে ভাবিলেন, লোকটি কি এখনও নিজের ঠিকানা খুঁজিয়া পায় নাই? অতএব হযরত আলী (রাঃ) তাহাকে নিজের সঙ্গে লইয়া গেলেন এবং (আজও) কেহ কাহাকে কোন কথা জিজ্ঞাসা করিলেন না। তারপর তৃতীয় দিনও হযরত আলী (রাঃ) তাহাকে সঙ্গে করিয়া (নিজের ঘরে) লইয়া গেলেন।

হযরত আলী (রাঃ) বলিলেন, তুমি কি আমাকে তোমার আগমনের উদ্দেশ্য বলিবে? হযরত আবু যার (রাঃ) বলিলেন, তুমি যদি আমার সহিত এই মর্মে অঙ্গীকার ও প্রতিজ্ঞা কর যে, অবশ্যই সঠিক পথ বলিয়া দিবে তবে বলিতে পারি। হযরত আলী (রাঃ) ওয়াদাবদ্ধ হইলে তিনি তাঁহার নিকট নিজের উদ্দেশ্যে ব্যক্ত করিলেন। হযরত আলী (রাঃ) বলিলেন, অবশ্যই ইহা সত্য এবং তিনি আল্লাহ্‌র রাসূল। সকালবেলা তুমি আমার পিছন পিছন চলিবে। যদি পথে তোমার জন্য আশঙ্কাজনক কিছু দেখি তবে আমি প্রস্রাব করিবার বাহানায় থামিয়া যাইব, (কিন্তু তুমি হাটিতে থাকিও)। পুনরায় আমি যখন চলিতে আরম্ভ করিব তখন তুমি আমার অনুসরণ করিবে এবং আমি যে ঘরে প্রবেশ করি তুমিও সেখানে প্রবেশ করিবে।

সূত্রঃ হায়াতুস সাহাবা

হযরত আবু যার গিফারী (রাঃ ) এর কষ্ট সহ্য করা - ২য় পর্ব পড়তে এখানে ক্লিক করুন

পরবর্তী গল্প
হযরত আবু যার গিফারী (রাঃ ) এর কষ্ট সহ্য করা - ২য় পর্ব

পূর্ববর্তী গল্প
হযরত সাঈদ ইবনে যায়েদ (রাঃ ) ও তাঁহার স্ত্রী ফাতেমা (রাঃ ) অর্থাৎ হযরত ওমর (রা:) এর বোনের কষ্ট সহ্য করা - শেষ পর্ব

ক্যাটেগরী