মৃত্যুর পূর্বে মাটি ও কবরের ঘােষণা | আমার কথা
×

 

 

মৃত্যুর পূর্বে মাটি ও কবরের ঘােষণা

coSam ২৬


আনাস (রাঃ) হতে বর্ণিত, তিনি বলেন : যমীন প্রতিদিন আদম সন্তানকে বলে : হে আদম সন্তান! তুমি আমার পৃষ্ঠের উপর স্বাধীনভাবে ঘুরা ফেরা করছ। তােমার মৃত্যুর পর যখন সবাই তােমাকে আমার উদরের সংকীর্ণ অন্ধকারময় স্থানে রেখে চলে যাবে, তখন তােমার কী দুদর্শা হবে? তখন তােমার আগের সে স্বাধীনতা আর থাকবে না।

আমি তােমার মৃত্তিকা-শয়নগৃহ এত সংকীর্ণ ও অন্ধকারাচ্ছন্ন করে দিব যে, একদিক ফিরলে আর অন্য দিকে ফিরার ইচ্ছা থাকবে না।

ভয়ে জড়সড় হয়ে কাঁদতে থাকবে। যমীন আরাে বলে : হে মানুষ! তুমি আমার পিঠের উপরে থেকে অন্যায়ভাবে ধনসম্পত্তি, টাকা-পয়সা উপার্জন করে সে হারাম খাদ্য খেয়ে তােমার দেহ মােটাতাজা করছ। জেনে রেখ, মৃত্যুর পর তােমার এ প্রিয় মােটা-তাজা সুখের শরীর কোন রকমেই মােটা-তাজা থাকবে না কীট-পতঙ্গের আহার্যে পরিণত হবে। সবই কীট-পতঙ্গে খেয়ে ধ্বংস করে ফেলবে।

মাটি আরাে বলে : হে মানব! আমার পিঠের উপর বসবাস করে কত যে পাপের কাজ করেছ এবং অপরকেও পাপের কাজে প্রেরণা দান করেছ। মৃত্যুর পর কবরে তার প্রকৃত শাস্তি পাবে।

এমনি করে আমার পিঠে হাসি-তামাশা, আমােদ-প্রমােদ ও উল্লাস করে বেড়াচ্ছ, অযথা সময় নষ্ট করছ, এর প্রতিদান একদিন অন্ধকারময় কবরে অনুভব করতে হবে। আজ আমার পিঠের উপরে থেকে আনন্দে দিন কাটাচ্ছ।  

মৃত্যুর পর আমার মাঝে এসে এর প্রতিফল হাড়ে হাড়ে ভােগ করবে। এভাবে মাটি আরাে বলে : হে আদম সন্তান! আমার এ উন্মুক্ত পিঠে আলােকময় খােলা ময়দানে বিচরণ করছ, কিন্তু মৃত্যুর পর এমন সংকীর্ণ অন্ধকারময় স্থানে বাস করতে হবে যেখানে মুক্ত বায়ু বইবে না। আলাে বলতে কিছুই পাওয়া যাবে, সেথায় তুমি কিছুই দেখতে পাবে না।

তুমি নশ্বর পৃথিবীতে বন্ধু-বান্ধব, আত্মীয়-স্বজন নিয়ে মহানন্দে প্রশস্ত মাঠে ও খােলা বাতাসে ভ্রমণ করছ, কিন্তু মৃত্যুর পর সাথীহীন কবরে একা বসবাস করতে হবে। বন্ধু-বান্ধব, আত্মীয়-স্বজন বলতে সেখানে কেউ থাকবে না।”

পরবর্তী গল্প
মুমূর্ষ ব্যক্তির সাথে ফেরেশতাদের কথােপকথন

পূর্ববর্তী গল্প
মৃত্যুকালে শয়তানের ধোকা থেকে আত্মরক্ষার উপায়

ক্যাটেগরী